.
.
প্রকাশঃ Thu, Feb 28, 2019 3:26 PM
আপডেটঃ Sun, Oct 20, 2019 4:34 AM


আমরা যুদ্ধ চাই না, শান্তি চাই : ওবায়দুল কাদের

অনলাইন ডেস্ক

আমরা যুদ্ধ চাই না, শান্তি চাই : ওবায়দুল কাদের

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের পাকিস্তান-ভারতের উদ্ভূত পরিস্থিতি সম্পর্কে বলেছেন, আমরা যুদ্ধ চাই না। শান্তি চাই। তবে কোনোপ্রকার সন্ত্রাসকে বাংলাদেশ সমর্থন করে না।

খালেদা জিয়ার চিকিৎসা নিয়ে বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের বক্তব্যের জবাবে মন্ত্রী বলেন, একাধিক বারের প্রধানমন্ত্রী বেগম খালেদা জিয়াকে কারাগারে প্রয়োজনীয় চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে। এ সময় খালেদা জিয়ার চিকিৎসা নিয়ে রাজনীতি না করার আহবান জানান তিনি।

আজ বৃহস্পতিবার দুপুরে নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁওয়ে কাঁচপুর ও মেঘনা এই দুটি সেতুর কাজের অগ্রগতি পরিদর্শন করে সাংবাদিকদের সাথে এসব কথা বলেন ওবায়দুল কাদের।

মন্ত্রী জানান, প্রায় ৯শ’ কোটি টাকা ব্যায়ে নির্মিত কাঁচপুর দ্বিতীয় সেতুর নির্মাণ কাজ ইতোমধ্যেই শেষ হয়েছে। মার্চ মাসের ১০ তারিখে প্রধানমন্ত্রী ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে কাঁচপুরের দ্বিতীয় সেতুর উদ্বোধন করবেন। মেঘনা দ্বিতীয় সেতুর উদ্বোধন হবে মে মাসে। এবং ঈদের আগেই গোমতী দ্বিতীয় সেতুর উদ্বোধন হবে। তিনটি সেতুর নির্মাণ ব্যায় সাড়ে ৮ হাজার কোটি টাকা।

ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশন নির্বাচন সম্পর্কে মন্ত্রী বলেন, সকল দল অংশগ্রহণ করলে নির্বাচন আরো উৎসবমুখর হতো। তবে শান্তিপূর্ণ নির্বাচন হচ্ছে।

বিএনপির চেয়ারপারসনের চিকিৎসা বিষয়ে তিনি বলেন, তাকে আদালত শাস্তি দিয়েছে। বিএনপি সবসময়ই তার চিকিৎসা নিয়ে রাজনীতি করে আসছে। এই রাজনীতি থেকে তাদের সরে আসতে আহবান জানান মন্ত্রী।

সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী আরো বলেন, পাক-ভারতের যুদ্ধ তিনি চান না। দুই দেশের মধ্যে শান্তি চান। তবে সন্ত্রাসী কর্মকান্ডকে বাংলাদেশ সমর্থন করে না বলে মন্তব্য করেন মন্ত্রী।

এসময় সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়ের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

তিনি বলেন, গত সাড়ে ৩ মাসে তার কোনো ধরনের স্বাস্থ্যের পরীক্ষা করা হয়নি।

মঙ্গলবার সকাল ১১টায় বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ অভিযোগ করেন।

মির্জা ফখরুল বলেন, তার সাথে তার পরিবারের সদস্যদেরও সাক্ষাৎ করতে দিচ্ছে না। ১৫ দিনের ধরেই সাক্ষাৎ করতে দিচ্ছে না। এমনকি তার আইনজীবীদের সঠিক মতো সাক্ষাৎ করতে দেয়া হচ্ছে না।

তাকে চিকিৎসা না দেয়া ষড়যন্ত্রের অংশ উল্লেখ করে তিনি বলেন, তার বিরুদ্ধে কোনো মামলারই ভিত্তি নেই। প্রায় ৩০ মামলা সবই ভিত্তিহীন। আমরা তার নিঃশর্ত মুক্তি চাই।

বিএনপির মহাসচিব বলেন, তার সাথে এমন আচরণ করবে তা দেশবাসী কল্পনায়ও করেনি। তিনি সাবেক তিনবারের প্রধানমন্ত্রী, বীর মুক্তিযোদ্ধা ও স্বাধীনতার ঘোষকের পত্নী। ’৭১ সালে নির্যাতিত। স্বৈরাচারের বিরুদ্ধে আপসহীন সংগ্রাম করেছেন। গণতন্ত্রের পক্ষে আজীবন সংগ্রাম করে আসছেন।

তার সাথে এ আচরণ গ্রহণযোগ্য হতে পারে না। কোনো সরকারে কাছেই তিনি এই আচরণ প্রাপ্য নয়। তার কোনো ক্ষতি হলে তার দায়ভার সরকারকেই নিতে হবে বলে তিনি হুঁশিয়ারি দেন।

এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, কোনো কারাগারে স্থানন্তর নয়, তার নিঃশর্ত মুক্তি দাবি করছি। অবিলম্বে তাকে মুক্তি দেয়া হোক।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য মির্জা আব্বাস, বাবু গয়েশ্বর চন্দ্র রায়, আব্দুল মঈন খান, বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী আহমেদ প্রমুখ।

নয়া দিগন্ত


ক্যাটেগরিঃ রাজনীতি,
ট্যাগঃ আমরা যুদ্ধ চাই না
বিভাগঃ ঢাকা
ঢাকা মেট্রো নিউজ


আরো পড়ুন