প্রকাশঃ Tue, Feb 5, 2019 9:48 PM
আপডেটঃ Tue, Apr 14, 2020 8:16 PM


মালয়েশিয়ায় ব্যাপক ধরপাকড়

অনলাইন ডেস্ক

মালয়েশিয়ায় ব্যাপক ধরপাকড়

চন্দ্র বর্ষের প্রথম দিনটিকে চীনারা নববর্ষ হিসেবে পালন করে থাকে। সেই হিসেবে আজ ফেব্রুয়ারির পাঁচ তারিখ থেকে চীনাদের নতুন বছর শুরু হয়েছে। মালয়েশিয়াতে চায়নিজ নিউ ইয়ার মানে লম্বা ছুটি আর মোটা অংকের বোনাস। যেখানে মালয়েশিয়ায় অনেক সময় বিদেশী শ্রমিকরা ঈদের দিনও ছুটি পায়না, সেখানে বেশির ভাগ মিল কারখানার মালিক চায়নিজ হওয়ায় সরকারিভাবে চায়নিজ নিউ ইয়ারে দু'দিন ছুটি হলেও চায়নিজরা তাদের প্রতিষ্ঠান বন্ধ রাখে প্রায় এক-দুই সপ্তাহ।

শ্রমিক মনে তাই ব্যাপক আনন্দের ঢেউ। ছুটিতে সকল দেশের শ্রমিকদের বন্ধু-বান্ধব ও ঘোরার লক্ষ্যে ব্যাপক সমাগম হয় কুয়ালালামপুরে। বিশেষ বিশেষ স্থানগুলোতে বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে পরিণত হয় জনসমুদ্রে।

অন্যান্য বছর ছুটির দিনে প্রশাসনিক ঝামেলা না থাকলেও আজ চায়নিজ নিউ ইয়ারের ছুটির প্রথম দিনেই ফাঁদ পাতে ইমিগ্রেশন ও পুলিশ । স্থানীয় সময় বেলা সাড়ে ৩টায় রাজধানী কুয়ালালামপুরের সিটি অব হার্ট খ্যাত বুকিত বিন্তাং এলাকা ঘিরে ফেলে পুরো এলাকা । এসময় চলাচলরত বাংলাদেশিরা সহ বিভিন্ন দেশের শ্রমিকদের কাগজপত্র তল্লাশি করে তারা প্রায় দু-শতাধিক অভিবাসীকে আটক করে নিয়ে যায় পুলিশ। তবে শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত কোন দেশের কতজন আটক হয়েছে তাৎক্ষনিক তা জানা সম্ভব হয়নি।

ধরপাকড় চলাকালীন সময় বুকিত বিন্তাং এলাকার বাংলাদেশি ব্যবসায়ী এম. কে. আনোয়ার এক প্রতিক্রিয়ায় বলেন, বছরের এই একটা সময়ের জন্য অপেক্ষায় থাকে সবাই। লম্বা ছুটির কারণে ব্যাপক লোক সমাগম হওয়ায় বছরের এ তিন-চারটা দিন ব্যবসায়ীরা থাকে কিছু ব্যবসায়ের আশায় আর শ্রমিকরা একটু ঘোরাফেরা করে। কিন্তু আজকের এই ধরপাকড়ের ফলে সকলের সেই আনন্দে ভাটা পড়ল।

বিডি প্রতিদিন


ক্যাটেগরিঃ আন্তর্জাতিক,
ট্যাগঃ মালয়েশিয়ায় ব্যাপক ধরপাকড়
ঢাকা মেট্রো নিউজ


আরো পড়ুন